সঙ্কটমোচন শ্রী হনুমানাস্টক বাংলা

শ্রী হনুমানাস্টক

শ্রী হনুমানাস্টক: পবন পুত্র হনুমান, হিন্দু পুরাণের অন্যতম প্রধান চরিত্র। তিনি ভগবান শ্রী রামের পরম ভক্ত এবং হনুমানকে বানর দেবতা হিসেবে মানা হয়, হনুমানজীর পিতা হলেন কেশরী এবং মাতা অঞ্জনী। কিন্তু তাঁর প্রকৃত পিতা হলেন বায়ু দেবতা (পবন দেব), যার কারণে তাঁকে ‘পবন পুত্র’ বলা হয়। হনুমান তাঁর অমিত শক্তি, বুদ্ধি, এবং নিষ্ঠার জন্য প্রখ্যাত। তিনি তাঁর জীবনে অসংখ্য অসাধারণ কীর্তি সম্পন্ন করেছেন, সেই কথাগুলি এই শ্রী হনুমানাষ্টক বর্ণিত হয়েছে।

সঙ্কটমোচন শ্রীহনুমানাষ্টক

জয় জয় মহাবীর হনুমান জয়।
ভক্তি শিক্ষা করি প্রভু তোমার কৃপায়।।
বাল্যকালে দিবাকরে করিলে ভক্ষণ।
তাহে অন্ধকার হৈল এই ত্রিভুবন।।
ত্রাসেতে ত্রিলোক সব কাঁপে থর থরে।
কেন বা এমন হৈল সবে চিন্তা করে।।
দেবগণ আসি তোমা মিনতি করিলে।
রবি ছাড়ি জগতের কষ্ট নিবারিলে।।
কেহ জানিত না কপি নামটি তোমার।
সঙ্কট মোচন নাম হয় যে তোমার।। ১ ॥

কলির ত্রাস যে তুমি গিরি বাসকারী।
জন্মাবধি প্রভু তোমা সন্ন্যাসী নেহারি।।
সহসা মহামুনি তোমা শাপ দিলে ।
কি জানি কি বিচার তুমি করেছিলে।।
পরম দয়াল তুমি জানে সর্বজন ।
এ দাসের দুঃখ তুমি কর নিবারণ৷৷ ২ ৷৷

অঙ্গদেৱে সঙ্গে লয়ে সীতা অন্বেষণে।
সন্ধান করিলে তুমি ফিরি বনে বনে।।
পাহাড় পর্বতে তুমি ঘুরিয়া ঘুরিয়া ।
মহাসাগরের তীরে রহিলে বসিয়া।।
বানরগণেরে তুমি দিলে আশ্বাসন।
কৃপা করি কর মোর সঙ্কট মোচন।। ৩ ।।

জয় রাম বলি তুমি এক লম্ফ দিলে।
আকাশ পথেতে তুমি লঙ্কায় চলিলে।।
শেষে লঙ্কা রাজ্যে গিয়া দিলে দরশন।
করিতে লাগিলে তুমি সীতা অন্বেষণ।।
অশোক কাননে সীতা পাইলে দেখিতে।
আমারে রক্ষহ তুমি এই সঙ্কটেতে৷৷ ৪ ৷৷

শ্রী হনুমানাস্টক এর পরবর্তী অংশ

রামের অঙ্গুরী দিয়া জানকীর করে।
প্রণাম করিয়া দাঁড়াইলে এক ধারে।।
চেড়ীগণ মুখে রাবণ পাইল শুনিতে
দূতগণে পাঠাইল বাঁধিয়া আনিতে।।
সূক্ষ্ম দেহে মহাবীর তুমি দিলে ধরা।
আমার সঙ্কট প্রভু দূর কর ত্বরা। ৫ ।

অতঃপর বিরাট রূপ করিলে ধারণ।
যত বস্ত্র ছিল ল্যাজে বাঁধে দূতগণ।।
তাহে অগ্নি জ্বালাইল রাবণ আদেশে।
তুমি জয় রাম বলি উঠিলে আকাশে।।
সে আগুনে সারা লঙ্কা করিলে দাহন।
এ দাসের কর প্রভু সঙ্কট মোচন।। ৬ ।।

অশোক কাননে তুমি এলে পুনরায়।
লঙ্কা দগ্ধ এ সংবাদ জানালে সীতায়।।
শুনিয়া জনকসুতা আনন্দিত হৈল।
বর দিয়া তোমার অগ্নি জ্বালা নিবারিল।।
আম্রকুঞ্জে ঢুকি সব কৈলে খান খান।
মোরে তুমি এ সঙ্কটে কর পরিত্রাণ।। ৭ ।।

সীতার সন্ধান লয়ে ফিরিয়া আসিলে।
শ্রীরামের শ্রীচরণে সকলি জানালে ।।
অতঃপর করা হলো সাগর বন্ধন ।
লঙ্কাপুরী প্রবেশিলে লয়ে সৈন্যগণ।।
মৃত সঞ্জীবনী আনি লক্ষ্মণে বাঁচাও ।
কৃপা করি এ দাসের সঙ্কট ঘুচাও ৷৷ ৮ ।।

জয় জয় মহাবীর হনুমান জয় ৷
ভক্তিরূপ শিক্ষা দিলে জগতে সবায়।।
জয় জয় বজরঙ্গী চির ধন্য তুমি।
তোমার চরণে সদা প্ৰণত যে আমি।।
তুমি হও শ্রেষ্ঠ ভক্ত বিশ্ব চরাচরে।
রামরূপ দেখাইলে হৃদয় মাঝারে।।
নিজ বক্ষ নিজে তুমি করি বিদারণ
তার মাঝে রামরূপ করালে দর্শন।।
হনুমানাষ্টক হেথা সমাপ্ত হইল।
জয় রাম জয় হনুমান ভক্তগণ বল ।।

সংকটমোচন শ্রী হনুমানাস্টক সমাপ্ত

আধ্যাত্মিক পথে উন্নতি করতে আমাদের অন্যান্য পোস্ট গুলো পড়ুন:-

১. নবগ্রহ স্তোত্র।

২.জয় রাধে রাধে কৃষ্ণ কৃষ্ণ।

Leave a Comment